জেসী’স কিচেন

জেসমিন রাশিদ জেসী

 

 

রান্না ঘরের প্রয়োজনীয় কিছু টিপস: (পর্ব – ১)

 

রূপসী বাংলা ডেস্ক:  এক সময় মেয়েরাই বেশি রান্নাবান্নার সাথে যুক্ত ছিল। কিন্তু বর্তমান কর্মব্যস্ত জীবনের চাহিদায় মেয়ে – ছেলে উভয়কেই কম বেশি রান্না করতে হয়। অনেকেই আবার সখে করেন। রান্না একটা শিল্প । এর জন্য প্রয়োজন বুদ্ধি, অনুমান ক্ষমতা এবং অভিজ্ঞতা। একে কখনও ছোট করে দেখা ঠিক না। রান্না করার সময় কিছু টিপস জানা থাকলে রান্না ভালো হয় এবং সময়ও বাঁচে। তাই আজ কিছু টিপস নিয়ে কথা বলবো-

 

প্রয়োজনীয় টিপস:-

১) চাল ধোয়ার পর ১০ মিনিট চাল পানিতে ভিজিয়ে রাখুন অথবা রান্নার সময় ১ চা চামচ তেল দিন। সুন্দর ঝরঝরে ভাত হবে।

২) রান্নার সময় গরম পানি ব্যবহার করুন।

৩) মুরগির ফ্যাট এড়াতে চাইলে চামড়া ছাড়িয়ে মুরগি রান্না করুন। করণ মুরগির চামড়াতেই প্রধান ফ্যাট থাকে।

৪) পেঁয়াজ কাটার আগে দুই ফালি করে কিছু সময় পানিতে ভিজিয়ে রাখুন এতে চোখে পানি আসবে না।

৫) তরকারিতে হলুদ বেশি হয়ে গেলে একটু আটা গুলে কয়েকটি বল বানিয়ে তরকারিতে ছেড়ে দিন। বল গুলো গলে যাবে না বরং সে বাড়তি হলুদ শুষে নিবে।

৬) আলু ও পেঁয়াজ এক সাথে রাখলে আলু তাড়াতাড়ি পঁচে যায়।

৭) ঘি বেশি দিন ঘরে রাখলে একটু গন্ধ হয়ে যায়। এক টুকরো গুড় ঘিয়ের কৌটায় রেখে দিলে অনেক দিন ঘিয়ের প্রকৃত গন্ধ থাকবে।

৮) অনেক সর্ষে তিতা হয়। তাই সর্ষে বাটার সময় লবণ আর কাঁচা মরিচ এক সাথে বাটুন। সর্ষের তিতা ভাব কেটে যাবে।

৯) নতুন বোতল থেকে সস বের করা বেশ কঠিন। বোতলের তলা পর্যন্ত একটি স্ট্র ঢুকিয়ে দিন। স্ট্র বের করে নিলে সস বের করা সহজ হবে।

১০) ঢেঁড়স পিচ্ছিল হওয়ায় এটি রান্না করতে অনেক সময় নষ্ট হয়, রং টাও কালচে হয়ে যায়। তাই ঢেঁড়স রান্না করার সময় এক চামচ লেবুর রস দিলে এই সমস্যা থাকবে না।

১১) রান্নায় লবণ বেশি হলে একটা আলু গোল গোল করে কেটে দিন। এই কাটা আলু অতিরিক্ত লবণ শুষে নিবে।

১২) চায়ের কাপে লেগে থাকা বাদামি দাগ লবণ দিয়ে ঘষলে উঠে যাবে।

১৩) মুরগির মাংস বা কলিজা রান্না করার সময় ১ টেবিল চামচ ভিনেগার দিন। এতে গন্ধ দূর হবে সাথে তাড়াতাড়ি সেদ্ধও হবে।

১৪) ফুলকপি রান্নার সময় ২ চা চামচ দুধ দিয়ে দিন। রান্না করার পরও ফুলকপি সাদা থাকবে।

১৫) যে কোনো সবুজ চাটনি করার সময় লেবুর রস দিলে সবুজ রং টা ঠিক থাকে।

১৬) আলু ও ডিম একসঙ্গে সিদ্ধ করুন। দুটো দুই কাজে ব্যবহার করলেও সিদ্ধ তাড়াতাড়ি হবে।

১৭) চিনির পাত্রের মধ্যে দু-চারটি লবঙ্গ দিয়ে রাখলে পিঁপড়ে ঢুকবে না।

১৮) ভাজার জন্য কেটে রাকা বেগুন বেশ কিছুক্ষণ আগে লবণ-হলুদ মাখিয়ে রাখলে ভাজতে তেল কম লাগে।

১৯) কাঁচের গ্লাসে গরম কিছু নিতে গেলে অনেক সময় ফেটে যায়। গরম কিছু ঢালবার আগে গ্লাসে একটি ধাতু নির্মিত চামচ রেখে ঢাললে গ্লাস ফাটবে না।

২০) মসলাপাতি তাড়াতাড়ি খুঁজে পেতে কৌটার গায়ে নাম লিখে রাখুন।

২১) সবজীর রং ঠিক রাখতে ঢাকনা দিয়ে জ্বাল না দেয়াই ভাল। আর কিছু সবজি আছে যাদের সামান্য সিদ্ধ করে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেললে কিংবা বরফ কুঁচিতে রাখলে রান্নার পরও রং ঠিক থাকে।

২২) বেগুন রান্না করার সময় সামান্য চিনি দিয়ে দিবেন এতে বেগুনের কারণে অ্যালার্জি জনিত সমস্যায় পড়বেন না।

২৩) মুরগির মাংস বা কলিজা রান্না করার সময় ১ টেবিল চামচ সিরকা দিন। এতে যেমন গন্ধ থাকবে না, তেমনি তাড়াতাড়ি সিদ্ধও হবে।

৪) চাল ও ডালের কৌটায় কয়েকটি শুকনো নিমপাতা বা শুকনো মরিচ রাখলে সহজে পোকা ধরবে না।

২৫) যতটুকু সম্ভব পাতিলে ঢাকানা দিয়ে রান্না করা ভাল, এতে করে খাবারের পুষ্টিমান বজায় থাকে।

২৬) আলু এবং আদা বালির মধ্যে ডুবিয়ে রাখলে অনেক দিন টাটকা থাকে।

২৭) ডিম সেদ্ধ করার সময় পানিতে আধা চা চামচ লবণ দিন। তাতে ডিম তাড়াতাড়ি সেদ্ধ হবে এবং ডিম ফাটবে না।

২৮) পাত্রের কানায় সামান্য মাখন বা তেল লাগিয়ে দিলে দুধ উথলে পড়ার সমস্যা থাকে না।

২৯) ফ্রিজে একটি পাতিলেবু টুকরো করে কেটে রেখে দিলে ফ্রিজের ভেতরে গন্ধ থাকবে না।

৩০) কাঁচামরিচের বোঁটা ফেলে পানি শুকিয়ে কাপড়ের বা কাগজের প্যাকেটে সংরক্ষণ করলে বেশি দিন ভালো থাকে।

৩১) যে কোনো খাবার রেফ্রিজারেটরে রাখলে ঢাকনা দিয়ে রাখা ভালো, এতে এক খাবারের গন্ধ আরেক খাবারে যায় না এবং রেফ্রিজারেটরও গন্ধ হয় না।

৩২) ডাল তাড়াতাড়ি রান্না করতে আগের রাতেই ভিজিয়ে রাখুন।

৩৩) বর্ষাকালে লবণ গলে যায়। এক মুঠো পরিষ্কার চাল পুটলি করে বেঁধে লবণের পাত্রে রেখে দিলে লবণ গলবে না।

৩৪) আচার বয়াম থেকে নেওয়ার সময় পরিষ্কার চামচ ব্যবহার করলে আচারে ফাঙ্গাস পড়ে না।

৩৫) ভ্রমণে শুকনা খাবার নেওয়াই ভালো। অনেকক্ষণ খাবার ভালো থাকে।

৩৬) পাস্তা বা নুডুলস সিদ্ধ করার পর সাথে সাথে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে নিলে ঝরঝরা থাকে।

৩৭) একসাথে অনেক রসুন ছাড়াতে সময় বেশি লাগে। আস্ত রসুন ফুটন্ত জলে মিনিট দুয়েক ভিজিয়ে হাতে দিয়ে ঘষলে ওপরের খোসা ছেড়ে যাবে।

৩৮) তেলে আচার ডুবিয়ে রাখলে আচারে ফাঙ্গাস পড়ে না।

৩৯) তরকারি কাটার সময় আঙ্গুলে দাগ পড়লে ভিনিগার অথবা লেবুর রসে লবণ মিশিয়ে আঙ্গুলে লাগিয়ে রেখে ধুয়ে নিলে দাগ উঠে যায়।

৪০) রান্নার সময় সাধারণ হাঁড়ি-পাতিলের পরিবর্তে প্রেসারকুকার ব্যবহার করুন। এতে সময় কম লাগবে।

চলবে…………

 

***মজাদার সব খাবার পেতে ভিজিট করুন***

https://foodpeon.com/kitchen/4018

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *