ভারত

দুইয়ের বেশি সন্তান থাকলে সরকারি চাকরি নয়

রূপসী বাংলা কলকাতা ডেস্ক: ২০২১ সালের পহেলা জানুয়ারির পর থেকে কোনো ব্যক্তির দুইয়ের বেশি সন্তান থাকলে তাকে আর সরকারি দেওয়া যাবে না। এমনই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভারতের আসাম রাজ্য সরকার।

সোমবার রাতের রাজ্যের মন্ত্রিসভার বৈঠকেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বিজেপি শাসিত রাজ্যটিতে।

আসামের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সনোয়ালের পাবলিক রিলেশন দফতরের এক কর্মকর্তা বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সরকারের লক্ষ্য ছোট পরিবার। তাই দুইটির বেশি সন্তানের বাবা ও মা সরকারি চাকরি পাওয়ার জন্য বিবেচিত হবেন না। আগামী ২০২১ সালের পহেলা জানুয়ারি থেকে কার্যকর হতে চলেছে এই নিয়ম।

জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে এই সিদ্ধান্ত নিয়ে আসাম সরকারের এক মন্ত্রী জানান, ‘জনসংখ্যা নীতি কার্যকর করা খুবই জরুরি, কারণ এটা আসামের সম্পদ ও জমির ওপর প্রচণ্ড প্রভাব ফেলছে।’

২০১৭ সালের সেপ্টেম্বর জনসংখ্যা ও নারী ক্ষমতায়ন সম্পর্কিত একটি বিল পাশ হয় আসামের বিধানসভায়। যার নাম ছিল ‘পপুলেশন এন্ড ওইমেন এমপাওয়ারমেন্ট পলিসি অফ অসম’। সেখানেই নির্দিষ্ট করে দেওয়া হয়েছিল কেবলমাত্র দুইটি সন্তান থাকা ব্যক্তিরাই সরকারি চাকরি পাওয়ার উপযুক্ত বলে বিবেচিত হবেন। শুধু তাই নয়, যারা ইতিমধ্যেই সরকারি চাকরি করছেন তাদের ক্ষেত্রেও এই নীতি কার্যকর হবে। দুই বছর পর সোমবারের ক্যাবিনেট বৈঠকে সেই নীতিই গ্রহণ করার সিদ্ধান্ত নিল আসাম সরকার।

যদিও বিজেপি সরকারের এই সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেছেন কংগ্রেস নেতা ও উত্তরাখন্ডের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী হরিশ রাওয়াত। তার অভিযোগ ‘আসাম সরকারের এই সিদ্ধান্ত অসাংবিধানিক। এটা একেবারেই সঠিক সিদ্ধান্ত নয় এবং মানুষের মৌলিক অধিকারের বিরোধী।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close

Adblock Detected

Please, Deactivate The Adblock Extension