আন্তর্জাতিকইউরোপকরোনা

পুতিন আগামী সপ্তাহ থেকে গণহারে টিকা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন

আগামী সপ্তাহের শেষের দিক থেকে গণহারে সম্ভাব্য করোনার টিকা প্রয়োগ করতে যাচ্ছে রাশিয়া। বুধবার এক টেলি কনফারেন্সে দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এ নির্দেশ দিয়েছেন। ভ্যাকসিন প্রয়োগের এ তালিকায় চিকিৎসা কর্মী ও শিক্ষকদের প্রাধান্য দেয়া হবে।

গত মাসে রাশিয়ার সরকারের পক্ষ থেকে ঘোষণা করা হয় যে, দেশটির উদ্ভাবিত করোনার টিকা স্পুটনিক ভি’র ট্রায়ালে ৯২ শতাংশ সফলতা এসেছে। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের তত্ত্বাবধানে গ্যামেলিয়া রিসার্চ ইনস্টিটিউট অব এপিডেমোলজি অ্যান্ড মাইক্রোবায়োলজি টিকাটি তৈরি করেছে। এর পরই সরকারের পক্ষ থেকে এই নির্দেশনা এলো।

রাশিয়া আগামী কয়েকদিনের মধ্যে দুই লাখ ভ্যাকসিন উৎপাদন করবে। রুশ প্রেসিডেন্ট জানান, শিক্ষক ও চিকিৎসাকর্মীদের শরীরে প্রথমে এই টিকা দেয়া হবে।

দেশটির উপ-প্রধানমন্ত্রী তাতিয়ানা গোলিকোভাকে পুতিন নির্দেশনা দিয়ে বলেছেন, এই পদ্ধতিটি এমনভাবে সংগঠিত করতে হবে, যাতে আগামী সপ্তাহের শেষের দিকেই বৃহৎ পরিসরে টিকা প্রয়োগ শুরু করা সম্ভব হয়। তবে এখন পর্যন্ত উৎপাদিত টিকা প্রাথমিক প্রয়োজন পূরণে সক্ষম হবে।

রাশিয়ার তৈরি টিকাটি ২ থেকে ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় সংরক্ষণ করা যাবে। প্রস্তুতকারী সংস্থাটির দাবি, আন্তর্জাতিক বাজারে স্পুতনিক-৫-এর প্রতি ডোজ ১০ ডলারের কম মূল্যে পাওয়া যাবে, বাংলা টাকায় প্রায় ৮ হাজার টাকা। তবে নিজেদের জনগণের জন্য এই টিকা বিনা মূল্যে সরবরাহ করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছে রুশ সরকার।

গামালেয়া রিসার্চ সেন্টারের পরিচালক আলেকজান্ডার গিন্টসবার্গ এক বিবৃতিতে বলেন, টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেয়ার এক সপ্তাহ পর দ্বিতীয় বিশ্লেষণের উপাত্ত সংগ্রহ করা হয়। এর অর্থ হলো– তাদের দেহ দুটি ডোজের ক্ষেত্রেই আংশিকভাবে সাড়া দিয়েছে। টিকাটির কার্যকারিতা ভবিষ্যতে আরও বাড়তে পারে বলেও জানান তিনি।

এর আগে প্রথম করোনার টিকা উদ্ভাবনের ঘোষণায় প্রেসিডেন্ট পুতিন জানিয়েছিলেন, স্পুটনিক ভি খুবই নিরাপদ। এটি তার মেয়ের দেহেও পুশ করা হয়েছে। ইতিবাচক ফল পাওয়া গেছে।❐

আল জাজিরা

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

Adblock Detected

Please, Deactivate The Adblock Extension