সচিন-সেহওয়াগকে টপকে সপ্তম দ্বিশতরান কোহলির

রূপসী বাংলা স্পোর্টস ডেস্ক: ঘরের মাঠে চলতি দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের আগে ২০১৯ খেলে ফেলেছেন তিনটি টেস্ট সিরিজ। কিন্তু শুক্রবারের আগে চলতি বছর টেস্ট ক্রিকেটে শতরান ছিল অধরা ছিল বিরাট কোহলির। দ্বিতীয় টেস্টের দ্বিতীয়দিন মধ্যাহ্নভোজের আগেই সেই খরা কাটিয়ে বছরের প্রথম শতরানটি পূর্ণ করে ফেলেছিলেন। আর তৃতীয় সেশনে সেই শতরানকেই দ্বিশতরানে কনভার্ট করলেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি।

দ্বিশতরানের নিরিখে এতদিন সচিন-সেহওয়াগের সঙ্গে একাসনে ছিলেন ভারত অধিনায়ক (৬)। স্বাভাবিকভাবেই পুণেতে সপ্তম দ্বিশতরান পূর্ণ করার পথে এদিন সচিন তেন্ডুলকর ও বীরেন্দ্র সেহওয়াগকে পিছনে ফেললেন বিরাট ‘দ্য রানমেশিন’। সেনুরাম মুথুস্বামীকে স্কোয়্যার লেগে পাঠিয়ে ২ রান নেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এদিন পাঁচদিনের ক্রিকেটে সপ্তম দ্বিশতরান পূর্ণ করেন ভারত অধিনায়ক। সেইসঙ্গে টেস্ট ক্রিকেটে ভারতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে সর্বাধিক দ্বিশতরানের মালিক হন তিনি। একইসঙ্গে দ্বিশতরানের নিরিখে প্রাক্তন ইংল্যান্ড ব্যাটসম্যান ওয়ালি হ্যামন্ড ও প্রাক্তন শ্রীলঙ্কান ব্যাটসম্যান মাহেলা জয়বর্ধনের পাশে নিজের নাম জুড়ে নেন কোহলি।

তাঁর সামনে এখন শুধুই কিংবদন্তি ব্রায়ান লারা (৯), কুমার সাঙ্গাকারা (১১) এবং স্যার ডন ব্র্যাডম্যান (১২)। দ্বিতীয়দিন মধ্যাহ্নভোজের বিরতির কয়েক ওভার আগে পাঁচদিনের ক্রিকেটে ২৬তম শতরান হাঁকানোর পথে রিকি পন্টিংয়ের নজির স্পর্শ করেন বিরাট। অধিনায়ক হিসেবে ১৯টি টেস্ট শতরান করে প্রাক্তন অজি অধিনায়কের রেকর্ড ছুঁয়ে ফেলেন ভারতীয় ক্রিকেটের পোস্টার বয়। যদিও অধিনায়ক হিসেবে ২৫টি শতরান হাঁকিয়ে তালিকায় সবার উপরে প্রাক্তন প্রোটিয়া অধিনায়ক গ্রেম স্মিথ।

এছাড়াও টেস্ট শতরানের নিরিখে এদিন স্টিভ স্মিথকে স্পর্শ করেন ভারত অধিনায়ক। সবমিলিয়ে একাধিক রেকর্ডের মধ্যে দিয়ে পুণে টেস্টের দ্বিতীয়দিন কার্যত নিজের নামে করে নিলেন ‘দিল্লি বয়’। প্রতিবেদন লেখা অবধি ৩১ বাউন্ডারি ও ২টি ওভার বাউন্ডারির সাহায্যে ২৩১ রানে অপরাজিত রয়েছেন কোহলি। অর্ধশতরান পূর্ণ করেছেন রবীন্দ্র জাদেজাও। ৭৭ রানে অপরাজিত এই অল-রাউন্ডার। এর আগে চতুর্থ উইকেটে কোহলির সঙ্গে ১৭৮ রানের পার্টনারশিপ গড়ে ব্যক্তিগত ৫৯ রানে আউট হন রাহানে।

প্রতিবেদন লেখা অবধি ভারতের রান ৪ উইকেটে ৫৬৪।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *