আন্তর্জাতিকএশিয়া

‘ফের পারমাণবিক সক্ষমতা বৃদ্ধি করছে ইরান’

আন্তর্জাতিক পারমাণবিক শক্তি সংস্থা দাবি করেছে, আবারও ইরান তার পারমাণবিক সক্ষমতা বৃদ্ধি করছে। বৃহস্পতিবার তারা এই অভিযোগ এনেছে। এক সপ্তাহ আগে জাতিসংঘের পারমাণবিক পর্যবেক্ষণ সংস্থার সঙ্গে তেহরানের অসহযোগিতার অভিযোগ তুলে একটি প্রস্তাব পাস করে আন্তর্জাতিক পারমাণবিক শক্তি সংস্থার বোর্ড অফ গভর্নরস। এর পরই বৃহস্পতিবার ইরানের পারমাণবিক সক্ষমতা বৃদ্ধির অভিযোগ তুলল সংস্থাটি।

জাতিসংঘের পরমাণু বিষয়ক নজরদারি বোর্ডের আনা প্রস্তাবের পাল্টা জবাব হিসেবেই ইরান তাদের দুটি ভূগর্ভস্থ অঞ্চলে ইউরেনিয়ামের পরিশোধন প্রক্রিয়া সম্প্রসারিত করেছে বলে কূটনীতিকরা দাবি করেছেন। খবর এনডিটিভির।

আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থার ৩৫টি দেশের বোর্ড অফ গভর্নরসের আনা এই ধরনের প্রস্তাবের বিরুদ্ধে ইরান কড়া অবস্থান নিয়েছে এবং ১৮ মাস আগের এক প্রস্তাবের প্রতিক্রিয়ায় তারা ইউরেনিয়ামকে ৬০ শতাংশ বিশুদ্ধতায় উন্নীত করেছে (যা অস্ত্রে ব্যবহারের জন্য প্রায় উপযোগী)। পাশাপাশি সে দেশ ঘোষণা করেছে যে, এই কর্মসূচি আরও ব্যাপকভাবে বাড়ানো হবে।

পাঁচজন কূটনীতিক বলেছেন, ইরান এবার তাদের ভূগর্ভস্থলে সেন্ট্রিফিউজের আরও ক্যাসকেড প্রতিস্থাপন করার পরিকল্পনা করেছে। এই যন্ত্রগুলো ইউরেনিয়ামকে সমৃদ্ধ করতে সাহায্য করে। তবে কোন ধরনের সেন্ট্রিফিউজ যোগ করা হচ্ছে সে বিষয়ে নির্দিষ্ট করে কিছু জানাননি কূটনীতিকরা। তবে তাদের মধ্যে একজন কূটনীতিক বলেছেন, ইরান এখনই ৬০ শতাংশ পর্যন্ত সমৃদ্ধ ইউরেনিয়ামের উৎপাদন বাড়াবে না। ইউরেনিয়ামের সমৃদ্ধি বা মান ৯০ শতাংশ হলে তা অস্ত্রে ব্যবহারের উপযোগী হয়ে ওঠে।

এই কূটনীতিকদের তিনজন বলেছেন, ইরানের অগ্রগতির দিকে নজরদারি করা আইএইএ পরিদর্শকরা সদস্য দেশগুলোর কাছে বৃহস্পতিবার একটি প্রতিবেদন পেশ করার পরিকল্পনা করেন।

আইএইএ এটাও দাবি করেছে, তেহরান উল্লেখযোগ্যভাবে তার পারমাণবিক কর্মসূচি বৃদ্ধি করেছে এবং এখন বেশ কয়েকটি পারমাণবিক বোমা তৈরির জন্য তাদের যথেষ্ট উপাদান রয়েছে।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

Adblock Detected

Please, Deactivate The Adblock Extension